Weight loss tips : ওজন বেশি? জেনে নিন ওজন কমানোর সেরা উপায়! 

WhatsApp Group Join Now
Telegram Group Join Now

মাত্র ৪ সপ্তাহেই ওজন আসবে নিয়ন্ত্রণে। নিজেকে ফিট রাখার উপায় গুলি জেনে নিন (Weight loss tips)।

বর্তমান যুগের মানুষ অনেক বেশি স্বাস্থ্য সচেতন। পরিমিত খাওয়া দাওয়া, যোগা, ব্যায়াম ইত্যাদি তাদের নিত্য সঙ্গীআজকের দিনে প্রতিটি মানুষই চান ওজন কমিয়ে নিজের দৈহিক স্বাস্থ্যকে ফিট রাখতে। তবে অনেক ক্ষেত্রে দেখা যায় বহু উপায় অবলম্বন করলেও সঠিক পদ্ধতি অনুসরণ করা হয় না বলেই ওজন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয় না। 

জানুন Weight loss tips সম্পর্কে বিস্তারিত

এই বিষয় নিয়ে হীনমন্যতায় ভোগেন বহু মানুষ। আজ এই প্রতিবেদনের মাধ্যমে আপনাদের এমন কয়েকটি তথ্য জানাবো যেগুলি পালন করলে মাত্র চার সপ্তাহে ই আপনি নিজের ওজন কিছুটা কমিয়ে ফেলতে পারবেন। দেখে নিন সেই পদ্ধতি গুলি কি কি। 

  • ১) ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাইলে লিকুইড ক্যালোরি খাওয়া কমিয়ে দিতে হবে। অর্থাৎ চা, কফি, পেপসি ইত্যাদি জাতীয় খাবার খাওয়া কম করতে হবে। 
  • ২) বেশি পরিমাণে জল খাওয়া আমাদের শরীরের জন্য অত্যন্ত উপকারী। ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতেও জল খাওয়ার পরিমাণ বাড়াতে হবে। সেই সঙ্গে মাথায় রাখতে হবে প্রতিবার খাবার খাওয়ার আগে হাফ লিটার জল অবশ্যই খাওয়া উচিত। গবেষণা মারফত দেখা গেছে খাবার খাওয়ার আগে এই পরিমাণ জল খেয়ে নিলে অল্প পরিমাণ খাবারেই পেট ভরে যায়। এই পদ্ধতি ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে অত্যন্ত সাহায্য করে।
  • ৩) ফাইবার যুক্ত খাবার ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখার ক্ষেত্রে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। বাজারে বিশেষ এক প্রকার লাল চাল বা ব্রাউন রাইস পাওয়া যায়, ফাইবার সমৃদ্ধ খাবার হিসেবে এই চালের ভাত ও অত্যন্ত উপকারী।
  • ৪) ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখার একটি গুরুত্বপূর্ণ ধাপ হলো প্রক্রিয়াজাত খাবার ত্যাগ করা। এই ধরনের খাবারগুলিতে যেমন কম থাকে ঠিক তেমনি এগুলি ওজন বাড়িয়ে দিতে সাহায্য করে।
  • ৫) টাটকা ফলমূল এবং শাকসবজি আমাদের ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে বিশেষভাবে কার্যকরী। এই গুলির মধ্যে ক্যালোরির পরিমান অনেক কম থাকে। তবে এতে পুষ্টিগুণ থাকে অত্যন্ত বেশি। সেই সঙ্গে এতে থাকে ফাইবার। টমেটোর মধ্যে থাকে লাইকোপিন। গাজর, মিষ্টি আলু, আনারস ইত্যাদিতে থাকে বিটা ক্যারোটিন, যা আমাদের ভিটামিন এ তৈরি করতে সাহায্য করে। ইত্যাদি বিভিন্ন ধরনের শাকসবজি ও ফলমূল আমাদের দেহের পুষ্টি বৃদ্ধি সাহায্য করে।
  • ৬) তেল মসলা যুক্ত খাবার খাওয়ার পরিমাণ নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। তেল দিয়ে যে রান্না গুলি করতে হয় সেখানে অল্প পরিমাণ তেল ব্যবহার করতে হবে এবং স্বাস্থ্যকর তেল খেতে হবে। 
  • ৭) শুধু খাদ্যের দিকগুলি নিয়ন্ত্রণ করলেই চলবে না। ওজন কমাতে চাইলে নিজের খাদ্য তালিকা ঠিক রাখার পাশাপাশি প্রতিদিন শরীর চর্চা বা ব্যয়াম করতে হবে। প্রতিদিন অন্তত ৩০ মিনিট করে শরীরচর্চা করলে তা শরীর স্বাস্থ্য ঠিক রাখতে অত্যন্ত কার্যকরী হয়।
পড়ুনঃ  Bank Holiday in February: ১১ দিনের ছুটি থাকবে ব্যাঙ্কে! কোলকাতায় কবে কবে! দেখুন
Amalendu Biswas

Leave a Comment

error: Content is protected !!